মাছের খাদ্য তৈরি ও উপকরণ

মাছের খাদ্য তৈরি ও উপকরণ নিয়ে একটি সাধারন ধারণা থাকছে আজকের লেখায়। আপনার কোন কোন মাছের জন্য কি কি ধরনের খাদ্য বানাবেন এবং সেসকল খাদ্যে পুষি্টমান কেমর রাখতে হবে সেসকল বিষয়। মৎস্য খামারিদের খাদ্য তৈরিতে আজকের লেখাটি কিছুটা সাহায্য কবে বলে আশাকরছি।

মাছ চাষের প্রধান ও গুরুত্বপূর্ণ খাত হচ্ছে মাছের খাদ্য ব্যবস্থাপনা। মাছের সুষম খাদ্য বাজারে কিনতে পাওয়া যায় তবে নিজেরা বাড়ীতে বা খামারে মাছের খাদ্য তৈরি করে খাদ্য ব্যবস্থাপনা খরচ কমাতে পারি।

মাছের খাদ্য তৈরি ও উপকরণ
মাছের খাদ্য

মাছের খাদ্যে প্রোটিনের উৎস

মাছের খাদ্য তৈরির সকল উপকরণের পুষ্টিগুন জানা থাকা প্রয়োজন।

  1. সয়াবীন মিল- ৪২-৪৪% প্রোটিন
  2. রেপ সিড অয়েল কেক- ৩৬% প্রোটিন
  3. ফিশ মিল এনালগ- ৬২% প্রোটিন
  4. ফিশ মিল (গ্রেড-২)- ৫৪% প্রোটিন
  5. এ্যাংকর ডালের খুদ- ৩৬% প্রোটিন
  6. খেসারীর খুদ- ২৯% প্রোটিন
  7. মসুরের খুদ- ২৪% প্রোটিন

কার্প মাছের খাদ্য তৈরির ফর্মূলা

কার্প মাছ প্রধানত পানিতে থাকা শ্যওলা (Phytoplankton) ও জলজ পোকা-মাকড় ( Zooplankton) খেয়ে থাকে। মাছের ঘনত্ব বেশি থাকলে বা পানিতে প্রাকৃতিক খাদ্যের যোগান কম থাকলে অথবা মাছের উৎপাদন বৃদ্ধি তড়ান্যিত করবে কার্ম-জাতীয় মাছ চাষে বাড়তি সুষম খাদ্য সরবসাহ করতে হয়।

কার্প মাছের খাদ্যে ২৪-২৫% আমিষ/প্রোটিন, ৪-৫% ফ্যাট ও ৩০০০ কিলোক্যালর/কেজি শক্তি থাকা প্রয়োজন। নিচে একটি কার্প মাছের খাদ্য তৈরির ফরমুলেশন দেওয়া হলো

উপাদানপরিমান (কেজি)
রাইচ ব্রান (অটো মিল)৩০
ডিওয়েলড রাইচ ব্রান (ডিওআরবি)৩০
সয়াবিন মিল৩০
ফিস মিল
মোলাসেস বা চিটাগুড়
লবন১.৫
লাইমস্টোন
ডাইক্যালসিয়াম ফসফেট০.৩০০
ফিস প্রিমিক্স০.২০০

তেলাপিয় ও পাঙ্গাস মাছের খাদ্য

তেলাপিয়া বা পাঙ্গাস মাছের খাদ্যে ২৮-৩০% আমিষ, ৫-৬% তেল ও ৩৩০০ কিলোক্যালরি/কেজি শক্তি থাকা দরকার। নিচে একটি খাদ্য তৈরির তালিকা দেওয়া হলো।

উপাদানপরিমান (কেজি)
রাইচ ব্রান (অটো মিল)২৫
ডিওয়েলড রাইচ ব্রান (ডিওআরবি)২৫
সয়াবিন মিল৩৫
ফিস মিল১০
মোলাসেস বা চিটাগুড়
লবন১.৫
লাইমস্টোন
ডাইক্যালসিয়াম ফসফেট০.৩০০
ফিস প্রিমিক্স০.২০০

শিং-মাগুর মাছের খাদ্য তৈরি

শিং-মাগুর মাছের খাবারে ৩০-৩২% আমিষ, ৫-৬% ফ্যাট ও ৩৪০০ কিলোক্যালরি/কেজি শক্তি থাকা প্রয়োজন। নিচে শিং-মাগুর মাছের খাদ্য তৈরির একটি তালিকা দেওয়া হলো।

উপাদানপরিমান (কেজি)
রাইচ ব্রান (অটো মিল)২০
ডিওয়েলড রাইচ ব্রান (ডিওআরবি)২০
সয়াবিন মিল৩৫
ফিস মিল২০
মোলাসেস বা চিটাগুড়
লবন১.৫
লাইমস্টোন
ডাইক্যালসিয়াম ফসফেট০.৩০০
ফিস প্রিমিক্স০.২০০

চিংড়ি মাছের খাদ্য তৈরির পদ্ধতি

চিংড়ি মাছের খাদ্যে ৩৩-৩৫ % প্রোটিন, ৬% ফ্যাট ও ৩৫০০ কিলোক্যালরি/কেজি শক্তি থাকা প্রয়োজন। নিচে একটি চিংড়ির খাদ্য তৈরির তালিকা দেওয়া হলো।

উপাদানপরিমান (কেজি)
রাইচ ব্রান (অটো মিল)১৫
ডিওয়েলড রাইচ ব্রান (ডিওআরবি)১৫
এ্যাংকর ডাল১০
সয়াবিন মিল৩৫
ফিস মিল২০
মোলাসেস বা চিটাগুড়
লবন১.৫
লাইমস্টোন
ডাইক্যালসিয়াম ফসফেট০.৩০০
ফিস প্রিমিক্স০.২০০

মাছের খাদ্যে খাদ্য তৈরির তালিকাগুলো মাছ চাষিদের খাদ্য তৈরিতে সাহায্য করবে।

আরো পড়ুন- চিটাগুড়ের পুষ্টিগুণ ও ব্যবহার

লেখাটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন।

Leave a Comment

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!